বিজ্ঞাপন

header ads

অতিরিক্ত ডিআইজিপি মো. মোজাম্মেল হক ও তার ডাক্তার মেয়ের মহতী উদ্যোগ

 মো. মোজাম্মেল হক (বামে), ডা. সাদিয়া আফরিন হক মৌমি (ডানে)                        ছবি- সংগৃহীত

অনলাইন রিপোর্ট ।। বাংলাদেশ পুলিশের চৌকস ও মেধাবী অফিসার, অতিরিক্ত ডিআইজি, RAB-4 এর কমান্ডিং অফিসার এবং পাবনার চাটমোহর উপজেলার কৃতিসন্তান মো. মোজাম্মেল হক, বিপিএম (বার), পিপিএম তাঁর মার্চ মাসের বেতন ও বৈশাখীসহ সমূদয় ভাতার অর্থ উৎসর্গ করলেন নিজ এলাকা চাটমোহরের নিঃস্ব, অসহায় ও হতদরিদ্র ৫০০ পরিবারের জন্য। তাঁর এই মহতী কাজে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন তাঁর বড় মেয়ে ডা. সাদিয়া আফরিন হক মৌমি, তিনি তাঁর কর্মজীবনের প্রথম প্রাপ্ত বেতনও উৎসর্গ করলেন তার পৈতৃক নিবাস চাটমোহরের নিঃস্ব ও অসহায় মানুষের জন্য। বিশ্বব্যাপী করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় মানুষ আজ গৃহবন্দী। সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষগুলোর অবস্থা বিবেচনা করে মানবতার সেবায় নিবেদিত মো. মোজাম্মেল হক তাঁর বর্তমান কর্মস্থল RAB-4 এর অধীন মিরপুর, সাভার ও মানিকগঞ্জ এলাকার মানুষের মাঝে সামাজিক সচেতনতা বৃদ্ধির পাশাপাশি সমাজের অসহায় ও হতদরিদ্র মানুষের মাঝে বিভিন্ন খাদ্যসামগ্রী ও স্বাস্থ্যসামগ্রী বিতরণ করছেন। জাতির এই মহাসংকটের সময় তিনি রাষ্ট্রীয় বিভিন্ন গুরুদায়িত্ব পালনের পাশাপাশি নিজ এলাকার নিঃস্ব, হতদরিদ্র ৫০০ পরিবারের জন্য বিভিন্ন খাদ্যসামগ্রী ও স্বাস্থ্য সামগ্রী বিতরণের ব্যবস্থা নিয়েছেন। তাঁর ছোটো ভাই বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মো. মনিরুল হক গতকাল শুক্রবার থেকে এই ৫০০ পরিবারের মাঝে খাদ্যসামগ্রী ও স্বাস্থ্যসামগ্রী বিতরণ শুরু করেছেন।
জননন্দিত ও সামাজিক ব্যক্তিত্ব মো. মোজাম্মেল হক তাঁর কর্মজীবনের সর্বত্র মানুষের সেবায় নিজেকে নিয়োজিত রেখেছেন। বাংলাদেশের প্রতিটি এলাকায় মো. মোজাম্মেল হক, বিপিএম (বার), পিপিএম এর মতো কৃতীসন্তানের জন্ম হোক।
মো. মোজাম্মেল হক, বিপিএম (বার), পিপিএম এবং তার জ্যেষ্ঠ সন্তান ডা. সাদিয়া আফরিন হক মৌমির দীর্ঘজীবন, কর্মজীবনের সর্বোচ্চ সফলতা এবং আমৃত্যু সুস্থতা কামনা করেছেন চাটমোহরবাসী।

Post a Comment

0 Comments